On
কম বেশি আমরা অনেকেই ব্লগিং করে টাকা ইনকাম করতে চাই, কিন্তু সঠিক নির্দেশনার না পাওয়ার কারনে পিছিয়ে পরতে হয়। আর তার ফলে যেটা হয় অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম এর স্বপ্ন টা মাথা থেকে বের করে দিতে হয়। দেখুন আমি আপনাদের যে কথা গুলো বলবো আজ এটাই বাস্তবতা, আমি আপনাকে যে যে ভুল গুলা ধরিয়ে দিব আপনি যদি সেই ভুল গুলী না করেন তাহলে আপনি একটা না একটা সময় ঠিক সফল ব্লগার হতে পারবেন।


 ইউনিক আর্টিকেল লেখা


অনেক সময় এমন টা হয় যে আপনি ইউনিক আর্টিকেল লিখতে যেয়ে ঠিক কি লিখবেন বুজতে পারেন না, ইউনিক আর্টিকেল লেখার মানে হোল, আপনি যাই লিখুন না কেন সেই লেখাতে যেন আপনার ইউনিক নেস থাকে, মানে আপনি যাই লিখুন না কেন আপনি আপনার মতো করে লিখুন। আপনি যখনই একটি আর্টিকেল সম্পূর্ণ নিজের মতো করে লিখবেন তখনই সেটা হবে ইউনিক আর্টিকেল। অন্যথায় এমন টা হয় আপনি ইউনিক আর্টিকেল লেখার চক্করে কি দিয়ে কি লিখলেন আপনার কোন কোথায় আপনার ভিসিটর বুজতে পারল না ।

কপি পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন

মাঝে মাঝে এই ভুল টা আমরা করে ফেলি, আমরা অন্ন কার ব্লগ থেকে আর্টিকেল কপি করে এনে কিছুটা এডিট করে আমাদের ব্লগে চালিয়ে দি। না এরকম টা করা যাবে না। আপনার কি মনে হয় আপনি এরকম করবেন আর গুগল আপনার ব্লগ কে রেঙ্ক করিয়ে দিবে, না কখনই না, উল্টে আপনি যদি কপি পেস্ট করেন তাহলে কখনই গুগল অ্যাডসেন্স পাবেন না ।

ফ্রেশ কনটেন্ট লিখতে হবে

মানে আপনি যে টপিক এর উপর কনটেন্ট টি লিখবেন, সেটা এমন ভাবে লিখবেন যাতে আপনার সাইট এর যারা ভিসিতর তাদের বুজতে বা পরতে সমস্যা না হয়। এবং সর্বদা সঠিক ইনফরমেশন দিবেন ।

কপি রাইট ফ্রী পিকচার ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন

এমন টা কখনই করলে হবে না, আপনি গুগলে গেলেন তারপর আপনি সার্চ করলেন এবং আপনার কাংখিত পিকচার টি ডাউনলোড করলেন এবং আপনি আপনার ব্লগে পাবলিশ করে দিলেন। আপনি যদি এরকম করেন তাহলে সারা জীবনেই আপনি গুগলে অ্যাডসেন্স এর এপ্রুভাল পাবেন না।

কীভাবে কপি রাইট ফ্রী স্টক পিচকার ডাউনলোড করতে পারেন আমার এই পোস্ট টি থেকে পরে আসুন।  ১৫ টি সেরা ফ্রি স্টক ফটো ডাউনলোডিং সাইট ।

আপনার ব্লগকে সিম্পিল এবং সুন্দর একটা লুকিং দিন

অমুকের সাইট এরকম তমুকের সাইট এরকম এ জন্য আমাকেই এরকম একটি সাইট বানাতে হবে, আর আমার সাইট এর জন্য ঠিক এরকম একটি থিম চাই । এই কাজ টা আমরা সবাই করে থাকি। এটা করা যাবেনা, কেননা আপনি আপনার ব্লগকে অতটা সাজিয়ে করবেন টা কি। টাতে না বাড়বে আপনার সাইট এর স্পীড না বাড়বে ভিসিতর, আপনার সাইট যতো লাইট ওয়েট হবে ততো আপনার জন্য ভালো হবে। আর আপনি অনেক বড় বড় ব্লগ ফলো করে দেখুন তারাও কিন্তু খুব সিম্পিল থিমই ব্যবহার করে । 

ব্লগে নিয়মিত আপডেট থাকা

এমন টা করলে হবে না আপনি আজ একটা পোস্ট করেছেন, আর ১ মাস পরে যেয়ে আপনি আর একটা পোস্ট করবেন, আপনার ব্লগে আপনাকে নিয়মিত আপডেট থাকতে হবে। নিয়মিত আপডেট বলতে আপনি একটা রুটিন করে নিন যে আপনাকে ১ দিন বা ২ দিন বা সপ্তাহে এই দিন এই দিন পোস্ট করবেন। তাহলে আপনার জন্য ভালো হবে, এবং আপনার ব্লগের জন্য ও ভালো হবে। কেননা টাতে করে গুগল ও বুজতে পারবে যে আপনি নিয়মিত আপডেট আছেন আপনার ব্লগে। যার ফলে আপনি পোস্ট করলে আপনার পোস্ট ইনডেক্স হতেও বেশি সময় লাগবে না।

আগে ভালো কনটেন্ট লিখুন তারপর টাকার চিন্তা করুন

দেখুন এই কথা টা বলতেই হবে আমাদের মাঝে অনেকেই আছে যারা ব্লগিং শুরু করে টাকার জন্য, কোন একটা জায়গা থেকে তারা সুনে আসে যে ব্লগিং করে টাকা ইনকাম করা যায়, আর ঝাপিয়ে পড়ে ব্লগিং করে টাকা ইনকাম করতে। আপনার চিন্তা ভাবনা যদি এরকম টা হয়ে থাকে তাহলে আপনার দাঁরা ব্লগিং করা সম্ভব না। আপনি অন্ন কিছু একটা করুন। কেননা আপনার মাথায় সব সময় এটা ঘুরবে যে আমি ব্লগিং করে এতো টাকা ইনকাম করবো এটা করবো অটা করবো, তার ফলে কি হবে আপনার মেইন কনটেন্ট এর দিকেই ফোকাস থাকবেনা আর আপনি কিছুই করতে পারবেন না। আপনি আপনার ব্লগের কনটেন্ট এর দিকে মন দিন, আপনার ব্লগ কে রেঙ্ক করান দেখবেন টাকা এমনি ইনকাম হবে। আপনাকে টাকা টাকা করতে হবে না। টাকাই আপনার কাছে ধরা দিবে।

বেশি পন্ডিতি করা বাদ দিতে হবে

আমাদের মাঝে অনেকে আছে যারা একটু পন্ডিতি স্বভাবের, তাদের কাজ হোল পন্ডিতি করা যেমন গুগল ভিপিএন ব্যবহার করে সাইট এর কিছু করা, তারপর উল্টা পাল্টা ওয়ে তে ব্যাক লিঙ্ক বানানো, ফেক তথ্য দেওয়া, আরো অনেক কিছুই করা। যেহেতু আমি পন্ডিতি টাইপ এর লোক না। তো আমি পন্ডিতি অতটা ভালো বুঝি না। এখন মুল কথায় ফেরা যাক, এ সকল বিষয় থেকে নিজেকে বিরত রাখুন। আর ভালো ভালো কনটেন্ট লিখতে থাকুন। এক সময় না এক সময় অবশ্যই সফলটা পাবেন।

Click to comment